সোমবার, ২২ Jul ২০১৯, ০১:২০ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম:
মৌলভীবাজারে ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনির স্বীকার একজন কেশবপুরের মজিদপুর ইউপির চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের পথসভা অনুষ্ঠিত কেশবপুরে মৎস্য চাষ বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত কেশবপুরে ভারত-বাংলাদেশ মৈত্রী হাসাপাতালের উদ্বোধন ভোক্তা অধিকার কর্তৃক অভিযান দুটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা জলঢাকা উপজেলার টেংগনমারী ক্লাস্টারের প্রধান শিক্ষকগণের সঙ্গে সাঁথিয়ায় ছেলেধরা গুজবে আতংক ৭ম শ্রেণির ছাত্রকে গলাকেটে নেয়ার চেষ্টা বেড়ায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে এক লক্ষ টাকা জরিমানা নরসিংদীতে মরিয়ম হত্যার বিচার দাবীতে মানবন্ধন নরসিংদীতে জেলা উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির মাসিক সভায় পুলিশ সুপারকে বিদায় জানালেন জেলা প্রশাসক ফাইনাল খেলার পূর্বমূহুর্তে বাদ দেওয়ার প্রতিবাদে ঠাকুরগাঁওয়ে বাফুফে’র বিরুদ্ধে মানববন্ধন চট্টগ্রামের অপেক্ষমাণ আবাসিক গ্যাস সংযোগ না দেওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে নৌকাডুবি ও যাত্রী ভাড়া! পাটগ্রামে বন্যায় ভাঙ্গা সেতুর সংযোগে সাঁকো দাবি জলঢাকায় সেতু না থাকায় দূর্ভোগে হাজারো ও মানুষ মানুষের সৎ কর্ম মানুষকে অনন্তকাল মানুষের মনের মনি কোঠায় বাচিয়ে রাখে যশোরে নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের দুই সদস্য আটক সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ফুলপুরে বন্যাদুর্গতদের মাঝে খাদ্য ও ত্রাণ বিতরন প্রতিবন্ধী রিকশা চালক চুরি করার জন্য ঘরের পেছনে ভর দুপুরে ঘুরা-ঘুরি কুশিয়ারা নদীর বাঁধ নির্মান ও নদী খনন প্রকল্প হতে নেয়া হয়েছে; পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক ঠাকুরগাঁওয়ে রান্না করা মাংসে “আল্লাহু” লেখা
দাম্পত্য জীবনে ৭টি কারণে ব্যর্থ যে নারী 

দাম্পত্য জীবনে ৭টি কারণে ব্যর্থ যে নারী 

ফাইল ছবি

গর্জন ডেস্ক: এককথায় একগুঁয়ে ও জেদী নারীরাই দাম্পত্য জীবনে সবচেয়ে ব্যর্থ, এমনকি আত্মীয়স্বজনদের সাথেও সুসস্পর্ক গড়তে ব্যর্থ। যে নারী সম্পর্ক গড়ার ক্ষেত্রে আবেগ-ভালোবাসা আর নমনীয়তার বিচক্ষণতা হারিয়েছে আর নিজের মতামত ও জিদকে প্রাধান্য দিয়েছে, সেই নারীই দাম্পত্য জীবনে সবচেয়ে বেশী ব্যর্থ হয়েছে।কিন্তু কেন? সে বিষয়ে লিখতে গিয়ে অধ্যাপিকা আমীনা মাসআদ আল হারবী গুরুত্ব দিয়েছেন যেসকল দিককে, ১। কেননা তখন সে স্বামীর সাথে টানাটানি ও ঠেলাঠেলিতে প্রবেশ করবে। বিজয়ের জন্য নিজের আমিত্বকে প্রকাশ করতে চাইবে। আর তখনই সে স্বামীর জিদের সামনে পরাজিত হবে। এমনকি তার বিরুদ্ধে নিকটস্থ ব্যক্তিরাও জেদী হয়ে উঠবে। কেননা পুরুষরা জেদী স্ত্রী বা একগুঁয়ে বোনের সামনে আরো বেশী কঠোর ও জেদপ্রবণ হয়ে উঠে। কিন্তু নমনীয় নারীর সামনে তারা হয় কোমল। . ২। জেদী নারী ধারণা করে, সে যদি নিজের মতামতের উপর দৃঢ় থাকে এবং দ্বন্দ্বের ঝড়ে অটল থাকতে পারে, তবে সে বিজয়ী হবে। কিন্তু একথা ভুলে যায় যে, নিজের মতের ক্ষেত্রে জিদ করে যদি একটা বিজয় পেয়েও যায় কিন্তু বিপরীত দিকে সে এমন একটি হৃদয় হারাবে যে তাকে ভালোবাসতো। . ৩। অধিকাংশ ঘটনায় পণ্ডিতগণ সহজ-সরল নম্র ও আবেগপ্রবণ স্বামীভক্ত নারীদের প্রশংসা করেছেন। যে নারী নম্রতার সাথে স্বামীকে সঙ্গ দেয় ও তার ভালোবাসা আদায় করার কৌশল বুঝে, তাকেই স্বামী অধিক ভালোবাসে ও তাকে আঁকড়ে ধরে রাখে। . ৪। ঝড় উঠলে তা চলে যাওয়ার জন্য যে নারী মাথা নামিয়ে নুয়ে পড়ে, সেই বুদ্ধিমান ও জ্ঞানী, তার পক্ষেই সংসারকে চিরকাল আঁকড়ে রাখা সম্ভব। কিন্তু যে নারী শুকনো গাছের মত মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে থাকে, সে মচকে যায় বা এমনভাবে ভেঙ্গে যায়- যা আর জোড়া লাগে না। . ৫। নিজের মতের উপর অটল জেদী নারীর বিশ্বাস হচ্ছে, আমিই বিজয়ী হব, তুমি পরাজিত হবে। এ নারী মূলত: অন্যকে ধ্বংস করার পূর্বে নিজেকেই ধ্বংস করে। সর্বদা আফসোসের জীবন অতিবাহিত করে। যার তিক্ততা সে ভোগ করে দুনিয়া ও আখেরাতে। . ৬। পারিবারিক কনসালটেন্সি বিভাগে কাজ করে আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা হচ্ছে: একগুঁয়ে ও জেদী নারীদের পরিণাম শেষ হয় তালাকের মাধ্যমে। ফলে তারা পারিবারিক ও সামাজিক জীবনে হয় ব্যর্থ। . ৭। এক বেদুঈন নারী তার কন্যার বিদায়ের দিন যে উপদেশ দিয়েছিল তা অত্যন্ত চমৎকার প্রজ্ঞাপূর্ণ কথা এবং পরিক্ষীত সত্য। সফল স্ত্রীরা এর বাস্তবতাকে প্রমাণ করেছেন। উপদেশটি হচ্ছে: “তুমি স্বামীর সামনে নিজেকে একজন দাসীতে পরিণত কর। দেখতে পাবে অচিরেই সে তোমার দাসে পরিণত হয়ে যাবে। ” ভালো পুরুষরা ধৈর্য্যশীল ও উদার হয়ে থাকে, কিন্তু নির্বোধ ও একগুঁয়ে-জেদী নারীরা তাদেরকে শত্রুতে পরিণত করে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter
All rights reserved © 2019 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY sdsubrata.info
Translate »