রবিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৯, ০৩:২০ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম:
সাবেক প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজমের প্রচেষ্টায় উন্নয়ন হচ্ছে জামালপুর ইউপি সদস্য ও তার সহচর কর্তৃক ধর্ষিত হয়ে বিধবার আত্মহত্যা! দূর্নীতি বিরোধী শুদ্ধি অভিযানকে স্বাগত জানিয়ে নীলফামারিতে র‌্যালী ও সমাবেশ জামালপুরের মেলান্দহে ধান বোঝাই ট্রাক্টর উল্টে চালকের মৃত্যু রাশিদুলের দুটি কিডনিই বিকল,মানবিক সাহায্যের আবেদন ঝালকাঠিতে ইলিশ নিধন অপরাধে তিন জেলেকে কারাদন্ড  ঝালকাঠিতে ইলিশ মাছ  নিয়ে পালানোর নালায় পড়ে প্রবাসীর মৃত্যু দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযানকে স্বাগত জানিয়ে নীলফামারীতে র‌্যালী ও সমাবেশ ধামরাই প্রেসক্লাবের দ্বিবার্ষিক নির্বাচন সাঁথিয়া সরকারি হাই স্কুলে প্রশ্নপত্র না থাকায় নির্বাচনী পরীক্ষা দিতে পারেনি ১৮৯জন শিক্ষার্থী বেড়ায় ভ্রাম্যমানে জেল জরিমানা ইলিশসহ কারেন্ট জাল জব্দ সাটুরিয়ায় ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপে সিএনজির চাঁদা তুলা বন্ধ আওয়ামীলীগের স্লোগান জয় বাংলা নয়, এটি মুক্তিযুদ্ধের রণধ্বনি: আকম মোজাম্মেল হক জামালপুরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর কণিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের ৫৫তম জন্মদিন পালিত আবরার হত্যা ও সমসাময়িক রাজনীতি নিয়ে বাংলাদেশ কংগ্রেসের উন্মুক্ত আলোচনা অনুষ্ঠিত প্রজাতন্ত্রের কর্মকর্তারা সবাই জনগণের চাকর: তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান এমপি রূপগঞ্জ ইউপি’র নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান সালাহউদ্দিন ভুঁইয়াকে ফুলেল শুভেচ্ছা সাটুরিয়ার জান্নায় পল্লী বিদ্যুতের উঠান বৈঠক অনুষ্ঠিত জাবিতে দোয়া মাহফিল ও শিক্ষা উপকরণ বিতরণের মাধ্যমে শেখ রাসেলের জন্মদিন পালন ধামরাইয়ে অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ উদ্ধার
৪০০ কোটি টাকা ব্যয়ে হাটহাজারী-নাজিরহাট-খাগড়াছড়ি সড়কের উন্নয়ন

৪০০ কোটি টাকা ব্যয়ে হাটহাজারী-নাজিরহাট-খাগড়াছড়ি সড়কের উন্নয়ন কাজের শুভ উদ্বোধন

ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি বলেছেন, আমি আওয়ামী লীগ করি না, জাতীয় পার্টি করি। এরপরও এই সরকারকে সহযোগিতা করে যাচ্ছি। কারণ একটাই, এই সরকারের ধারাবাহিক উন্নয়ন। আজকে কেউ আমাদের দরিদ্র দেশ বলে না। বাংলাদেশে অর্থনৈতিক ও সামাজিক নিরাপত্তা তৈরি হয়েছে। একদিন পার্শ্ববর্তী যে দেশ আমাদের স্বাধীনতা যুদ্ধে সাহায্য করেছিল সেই দেশের চেয়েও আমরা অনেক ক্ষেত্রে ভালো আছি। এটা আমার কথা নয় ভারতের নোবেল বিজয়ী অমর্ত্য সেন এর কথা। আজ বাংলাদেশে একজনও না খেয়ে মরে না। অথচ যে ভারতের অর্থনীতি আমাদের চেয়েও মজবুত, সে ভারতের কৃষকরা না খেয়ে মারা যায়। এই যে বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা, এই অগ্রযাত্রাকে ধরে রাখার জন্য বর্তমান সরকারকে আগামীতেও ক্ষমতায় থাকতে হবে। যানবাহন চলাচলে ‘ভোগান্তির সড়ক’ হিসেবে পরিচিত হাটহাজারী থেকে খাগড়াছড়ি পর্যন্ত ৩২ দশমিক ৫০ কিলোমিটার সড়কটির উন্নয়ন কাজের শুভ উদ্বোধন উপলক্ষ্যে রবিবার বিকালে হাটহাজারী বাস টার্মিনালে আয়োজিত এক জনসভায় আনিসুল ইসলাম মাহমুূদ এ বক্তব্য দিচ্ছিলেন। এ জনসভায় উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ইউনুস গণি চৌধুরী, হাটহাজারী নির্বাহী কর্মকর্তা, এমপি’র একান্ত ব্যক্তিগত সচিব সৈয়দ মঞ্জুরুল আলমসহ রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।৪০০ কোটি টাকা ব্যয়ে দুই বছর মেয়াদী প্রকল্পের আওতায় এই কাজ সম্পন্ন করা হবে বলে জানান সড়ক ও জনপথ (সওজ) চট্টগ্রাম বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী জুলফিকার আহমেদ। এই সড়কের কাজ সম্পন্ন হলে একদিকে যেমন যাত্রীদের হয়রানি ও ভোগান্তি দূর হবে, তেমনি অন্যদিকে, দুর্ঘটনা কমবে বলে জানান তিনি।পাশাপাশি হাটহাজারীর যোগাযোগ ব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন আসবে বলেও আশা প্রকাশ করেন এই প্রকৌশলী। চট্টগ্রাম সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগ থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, হাটহাজারী সদর থেকে নাজিরহাট হয়ে ফটিকছড়ির হেয়াকো-মানিকছড়ি-মাটিরাঙা হয়ে খাগড়াছড়ি পর্যন্ত ৩২ দশমিক ৫০ কিলোমিটার সরু সড়কটি চারলেনে উন্নীত করা হবে। বিদ্যমান সড়কের দ্বিগুণ করা হবে এ সড়ক। বর্তমানে গুরুত্বপূর্ণ সড়কটি ১৮ ফুট রয়েছে। সড়কের পাশাপাশি নির্মাণ করা হবে ৩০৮ মিটারের ৩৮টি আরসিসি কালভার্ট। সড়কবাঁক প্রশস্ত করতে দেয়া হবে ৬ লাখ ৪৬ হাজার ৫’শ ৫ দশমিক ৬ ঘনমিটার মাটি। রোড সাইন-সিগন্যাল, গাইড পোস্ট, রোড মার্কিংসহ নেয়া হবে সড়ক নিরাপত্তায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা। ১৮ ফুট প্রস্থের সড়কটিকে ৩৪ ফুটে উন্নীত করা হচ্ছে। ইস্টার্ন বাংলাদেশ ব্রিজ ইমপ্রুভমেন্ট প্রজেক্ট (ইবিবিআইপি) এর আওতায় শুরু হচ্ছে এই কাজ। পসওজের দেয়া তথ্য মতে, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মীরসরাই বারৈয়ারহাট হয়ে হাটহাজারী-ফটিকছড়ির হেয়াকো-মানিকছড়ি-মাটিরাঙা-খাগড়াছড়ি পর্যন্ত বর্তমানে সড়ক যোগাযোগ চালু আছে। কিন্তু ফটিকছড়ির হেয়াকো-মানিকছড়ি-মাটিরাঙা-খাগড়াছড়ি পর্যন্ত ১৮ ফুট প্রস্থের এই সকড়টি সরু হওয়ায় প্রতিনিয়তই ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে যাত্রীদের। এই সড়কে ঘণ্টার পর ঘণ্টা যানজট লেগে থাকে। এছাড়া, প্রতিনিয়ত ঘটছে দুর্ঘটনা। ফলে যানবাহনের আধিক্য ও যাত্রী চাপের কারণে গুরুত্বপূর্ণ এ সড়ক সম্প্রসারণের দাবি ওঠে বিভিন্ন মহল থেকে। এর প্রেক্ষিতে সবকিছু বিবেচনায় নিয়ে সড়ক সম্প্রসারণে হাত দেয় সওজ কর্তৃপক্ষ।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter

এ জাতীয় আরো খবর পড়ুন

All rights reserved © 2019 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »